বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের হারিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রথম জয়

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বৃহস্পতিবার সুপার এইটের দ্বিতীয় ম্যাচে ইংল্যান্ডকে ১৫ রানে হারিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এবারের আসরে এটাই ড্যারেন স্যামির দলের প্রথম জয়।

পাল্লেকেলে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ৫ উইকেটে ১৭৯ রান করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। জবাবে ৪ উইকেটে ১৬৪ রানে থেমে যায় ইংল্যান্ডের ইনিংস।

লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে রবি রামপলের করা প্রথম ওভারে রানের খাতা খুলার আগেই ক্রেইগ কিসওয়েটার ও লুক রাইটের বিদায়ে ইংল্যান্ডের শুরুটা মোটেও ভালো হয়নি। তৃতীয় উইকেটে জনি বেয়ারস্টোর (১৮) সঙ্গে আলেক্স হালেসের ৫৫ রানের জুটি ধাক্কা সামাল দিয়ে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের খেলায় ফেরায়।

দশম ওভারের শেষ বলে বেয়ারস্টোর বিদায়ের পর ইয়ন মর্গান মাঠে নামার পর খেলা চিত্র পাল্টে যায়। পাল্টা আক্রমণে স্যামির কপালের ভাজ বাড়িয়ে তুলেন মর্গান। শেষ পর্যন্ত না পারলেও চতুর্থ উইকেটে হালেসের (৫১ বলে ৬৮) সঙ্গে মর্গানের ১০৭ রানের জুটি শেষ ওভার পর্যন্ত ইংল্যান্ডকে খেলায় রাখে। মর্গান অপরাজিত থাকেন ৭১ রানে। তার ৩৬ বলের ইনিংসে ৪টি চার ও ৫টি ছক্কা।

৩৭ রানে ২ উইকেট নিয়ে রামপল ওয়েস্ট ইন্ডিজের সেরা বোলার।

এর আগে ব্যাট করতে নেমে ১১ ওভারে ক্রিস গেইলের সঙ্গে জনসন চার্লসের ১০৩ রানের উদ্বোধনী জুটি ওয়েস্ট ইন্ডিজকে বড় সংগ্রহের ভিত গড়ে দেয়। গ্রায়াম সোয়ানের বলে স্টিভেন ফিনের ক্যাচে পরিণত হওয়ার আগে গেইল করেন ৫৮ রান। তার ৩৫ বলের ইনিংসে ৬টি চার ও ৪টি ছক্কা।

গেইলের বিদায়ের পর প্রায় একা খেলেই দলকে লড়াইয়ের পুঁজি গড়ে দেন জনসন। আঠারোতম ওভারে পঞ্চম বলে জাদে ডের্নবাকের বলে বেয়ারস্টোয়ের হাতে ক্যাচ দেয়ার আগে করেন ৮৪ রান। তার ৫৬ বলের ইনিংসটি ১০টি চার ও ৩টি ছক্কায় সাজনো।

২৬ রানে ২ উইকেট নিয়ে ইংল্যান্ডের সেরা বোলার অধিনায়ক স্টুয়ার্ট ব্রড।

ব্লগার

পোষ্টটি লিখেছেন: ব্লগার

এই ব্লগে 25 টি পোষ্ট লিখেছেন .

সম্পাদক জনকন্ঠ ব্লগ।

ব্লগার

About ব্লগার

সম্পাদক জনকন্ঠ ব্লগ।
Bookmark the permalink.

Comments are closed.